ঢাকা ১১:৩২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ১১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রাজশাহী চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ককটেল বিস্ফোরণ

খ্রীষ্টফার জয়
  • আপডেট সময় : ০৬:২০:৩৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৯ নভেম্বর ২০২৩ ৫২ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক:


রাজশাহীর চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ভবনের সামনে অবস্থানরত পুলিশের একটি গাড়ি লক্ষ্য করে হাত বোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়েছে।

বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে এ ঘটনায় আদালতের জেনারেটর রুমের জানালার কাচ ভেঙে যায়।

হাত বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় আদালত চত্বরে অবস্থানরত মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পাশে রিটানিং অফিসার ও জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে বাড়ানো হয় পুলিশ ও গোয়েন্দা নজরদারি।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে হাত বোমা ছঁড়া হয়। তবে লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে গাড়িতে না পড়ে পাশে বিকট শব্দে বিস্ফোরিত হয়। এ ঘটনায় কোনো পুলিশ সদস্য আহত না হলেও তারা কানে কম শুনছেন বলে জানিয়েছেন। ঘটনার পর সেখান থেকে পুলিশের গাড়িটি সরিয়ে নেওয়া হয়। এর পর বিস্ফোরণের জায়গাটি ইট দিয়ে ঘিরে পুলিশ তদন্ত শুরু করে এবং সেখান থেকে হাত বোমার খোসা ও স্প্রীন্টার উদ্ধার করে।

রাজপাড়া থানার ওসি রফিকুল হক বলেন, আদালতের সীমানা প্রাচীরের বাইরে থেকে পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে বোমাটি নিক্ষেপ করা হয়েছিল। এতে কোনো ক্ষয়ক্ষতির ঘটনা ঘটেনি। বিষয়টি তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান ওসি।

জেলা প্রশাসক শামীম আহমেদ বলেন, ঘটনার সময় তার কার্যালয়ে ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী ফজলে হোসেন বাদশা মনোনয়নপত্র জমা দিচ্ছিলেন। এ সময় আমরা বিকট শব্দ শুনি। পরে জানলাম বোমা বিস্ফোরণ ঘটানো হয়েছে। এ পর পুরো আদালত চত্বরে নিরাপত্তা ও গোয়েন্দা নজরদারি বাড়াতে আইনশৃংখলা বাড়াতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।


প্রসঙ্গনিউজবিডি/জে.সি

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

রাজশাহী চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ককটেল বিস্ফোরণ

আপডেট সময় : ০৬:২০:৩৭ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৯ নভেম্বর ২০২৩

নিজস্ব প্রতিবেদক:


রাজশাহীর চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ভবনের সামনে অবস্থানরত পুলিশের একটি গাড়ি লক্ষ্য করে হাত বোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়েছে।

বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে এ ঘটনায় আদালতের জেনারেটর রুমের জানালার কাচ ভেঙে যায়।

হাত বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় আদালত চত্বরে অবস্থানরত মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পাশে রিটানিং অফিসার ও জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে বাড়ানো হয় পুলিশ ও গোয়েন্দা নজরদারি।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে হাত বোমা ছঁড়া হয়। তবে লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে গাড়িতে না পড়ে পাশে বিকট শব্দে বিস্ফোরিত হয়। এ ঘটনায় কোনো পুলিশ সদস্য আহত না হলেও তারা কানে কম শুনছেন বলে জানিয়েছেন। ঘটনার পর সেখান থেকে পুলিশের গাড়িটি সরিয়ে নেওয়া হয়। এর পর বিস্ফোরণের জায়গাটি ইট দিয়ে ঘিরে পুলিশ তদন্ত শুরু করে এবং সেখান থেকে হাত বোমার খোসা ও স্প্রীন্টার উদ্ধার করে।

রাজপাড়া থানার ওসি রফিকুল হক বলেন, আদালতের সীমানা প্রাচীরের বাইরে থেকে পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে বোমাটি নিক্ষেপ করা হয়েছিল। এতে কোনো ক্ষয়ক্ষতির ঘটনা ঘটেনি। বিষয়টি তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান ওসি।

জেলা প্রশাসক শামীম আহমেদ বলেন, ঘটনার সময় তার কার্যালয়ে ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী ফজলে হোসেন বাদশা মনোনয়নপত্র জমা দিচ্ছিলেন। এ সময় আমরা বিকট শব্দ শুনি। পরে জানলাম বোমা বিস্ফোরণ ঘটানো হয়েছে। এ পর পুরো আদালত চত্বরে নিরাপত্তা ও গোয়েন্দা নজরদারি বাড়াতে আইনশৃংখলা বাড়াতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।


প্রসঙ্গনিউজবিডি/জে.সি