ঢাকা ০৫:৩৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শেষ হলো একাদশ জাতীয় সংসদ অধিবেশন

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:১৯:৩৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২ নভেম্বর ২০২৩ ৬৭ বার পড়া হয়েছে

নিউজ ডেস্ক:


শেষ হলো একাদশ জাতীয় সংসদের ২৫তম অধিবেশন। এটিই ছিল একাদশ সংসদের শেষ অধিবেশন। একাদশ জাতীয় সংসদের নির্বাচনের পর ২০১৯ সালের ৩০ জানুয়ারি প্রথম অধিবেশন বসে। সেই অনুযায়ী আগামী বছর ২৯ জানুয়ারি এই সংসদের পাঁচ বছরের মেয়াদ পূর্ণ হবে।

বৃহস্পতিবার রাতে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এ চলতি অধিবেশনের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

এদিকে, এই একাদশ সংসদের পথ চলায় এই পর্যন্ত ৩১ জন সদস্য সদস্য প্রাণ হারিয়েছেন। এর মধ্যে কোডিভ-১৯সহ বার্ধক্যজনিত কারণ রয়েছে। আবার এই প্রয়াতদের মধ্যে প্রবীণ রাজনীতি ও অভিজ্ঞ পার্লামেন্টারিয়ানও রয়েছেন।

এই একাদশ সংসদের ২৫টি অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়। এই সময়ে মোট ১৬৫টি বিল পাস হয়েছে। শেষ অধিবেশনে পাস হয় ২৫টি বিল।

অন্যদিকে, সংবিধান অনুযায়ী সংসদের মেয়াদ শেষ হওয়ার আগের ৯০ দিনের মধ্যে নতুন সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সেই অনুযায়ী ১ নভেম্বর থেকে নির্বাচনের সময় গণনা শুরু হয়েছে। আগামী সপ্তাহে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার কথা রয়েছে। ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহ বা আগামী বছর জানুয়ারি প্রথম সপ্তাহে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।


প্রসঙ্গনিউজবিডি/জে.সি

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

শেষ হলো একাদশ জাতীয় সংসদ অধিবেশন

আপডেট সময় : ০৫:১৯:৩৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২ নভেম্বর ২০২৩

নিউজ ডেস্ক:


শেষ হলো একাদশ জাতীয় সংসদের ২৫তম অধিবেশন। এটিই ছিল একাদশ সংসদের শেষ অধিবেশন। একাদশ জাতীয় সংসদের নির্বাচনের পর ২০১৯ সালের ৩০ জানুয়ারি প্রথম অধিবেশন বসে। সেই অনুযায়ী আগামী বছর ২৯ জানুয়ারি এই সংসদের পাঁচ বছরের মেয়াদ পূর্ণ হবে।

বৃহস্পতিবার রাতে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এ চলতি অধিবেশনের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

এদিকে, এই একাদশ সংসদের পথ চলায় এই পর্যন্ত ৩১ জন সদস্য সদস্য প্রাণ হারিয়েছেন। এর মধ্যে কোডিভ-১৯সহ বার্ধক্যজনিত কারণ রয়েছে। আবার এই প্রয়াতদের মধ্যে প্রবীণ রাজনীতি ও অভিজ্ঞ পার্লামেন্টারিয়ানও রয়েছেন।

এই একাদশ সংসদের ২৫টি অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়। এই সময়ে মোট ১৬৫টি বিল পাস হয়েছে। শেষ অধিবেশনে পাস হয় ২৫টি বিল।

অন্যদিকে, সংবিধান অনুযায়ী সংসদের মেয়াদ শেষ হওয়ার আগের ৯০ দিনের মধ্যে নতুন সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সেই অনুযায়ী ১ নভেম্বর থেকে নির্বাচনের সময় গণনা শুরু হয়েছে। আগামী সপ্তাহে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার কথা রয়েছে। ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহ বা আগামী বছর জানুয়ারি প্রথম সপ্তাহে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।


প্রসঙ্গনিউজবিডি/জে.সি