ঢাকা ০৫:২৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কলেজ থেকে অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার ১০ বস্তা উত্তরপত্র চুরি

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৪:৪৬:৪৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০২৪ ৪৩ বার পড়া হয়েছে

নিউজ ডেস্ক:


গাজীপুরে ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজ থেকে ২০২২ সালের অনার্স প্রথম বর্ষ পরীক্ষার ১০ বস্তা উত্তরপত্র চুরির ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের (জিএমপি) বাসন থানায় মামলা দায়ের করলে একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার মামলাটি দায়ের করেন ওই কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান পরীক্ষক সহযোগী অধ্যাপক ইফফাত আরা। এ ঘটনায় ওই কলেজের অনিক নামে স্নাতক শ্রেণির এক শিক্ষার্থীকে আটক করেছে পুলিশ।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের পাশে ষ্টোর রুমে রাখা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনার্স ১বর্ষ পরীক্ষা-২০২২ রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষার ৩৯ বস্তা উত্তরপত্র ষ্টোর রুমে তালাবদ্ধ অবস্থায় ছিল। গত ২১ মার্চ বিকেলে ষ্টোর রুমে তালা সঠিকভাবে লাগানো ছিলো। ২২ মার্চ শুক্রবার দুপুরে ২টার দিকে কলেজের নিরাপত্তা প্রহরী শ্রী সুশিল ও নিরঞ্জন কলেজের অধ্যক্ষকে জানায়, ষ্টোর রুমের তালা ভেঙ্গে উত্তরপত্র চুরি হয়েছে। তাৎক্ষণিকভাবে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ১০ বস্তা পরীক্ষার উত্তরপত্র চুরি ঘটনা নিশ্চিত হন।
জানা গেছে, রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগের প্রধান পরীক্ষক সহযোগী অধ্যাপক ইফফাত আরার অধীনে কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের পাশে স্টোর রুমের মধ্যে রাখা হয় জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স ১ম বর্ষ (পরীক্ষা ২০২২) রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষার ১৯ বস্তা উত্তরপত্র। এছাড়া তার সহকর্মী একই বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক শাহাদাত হোসেনের অধীনে অনার্স ১ম বর্ষের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষার ২০ বস্তা উত্তরপত্রসহ মোট ৩৯ বস্তা উত্তরপত্র ওই স্টোর রুমের মধ্যে তালাবদ্ধ অবস্থায় ছিল। যার ফলাফল এখনো প্রকাশিত হয়নি।

মামলার বাদী ওই কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান পরীক্ষক সহযোগী অধ্যাপক ইফফাত আরা বলেন, ‘শুক্রবার জুমার পর খবর পাই ষ্টোর রুমের তালা ভেঙ্গে কে বা কারা আমাদের খাতাগুলো নিয়ে গেছে। পরে প্রিন্সিপাল স্যারসহ আমরা সবাই ঘটনাস্থলে যাই, পাশাপাশি পুলিশে খবর দেয়া হয়। পরে সেখানে দেখি ১০টা বস্তা খাতা চুরি গেছে। কোন বস্তাতে ২৫০টি উত্তরপত্র, কোন বস্তাতে ২৮০টি আবার কোন বস্তাতে ৩০০ থেকে ৩৫০টি উত্তরপত্র ছিল। পরে কেউ একজন একটি অটোরিকশা করে ১০বস্তা খাতা পাঠিয়ে দিয়েছে।’

ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ বি এম আব্দুল হান্নান জানান, ‘কলেজের বিজ্ঞান ভবনের নিচ তলায় একটি ষ্টোর আছে। শুক্রবার দুপুর দেড়টার দিকে খবর পাই সেখানের তালা ভেঙ্গে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের খাতা চুরি হয়েছে। তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশে খবর দেয়া হলে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শনে আসলে ঠিক ওই সময়ে কলেজেরই এক ছাত্র একটি অটোরিকশা দিয়ে ১০বস্তা খাতা নিয়ে কলেজ ক্যাম্পাসে আসে। পরে ওই ছাত্রকে পুলিশ আটক করে।’

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা বাসন থানার এস আই নাজমুল হক বলেন, খাতা চুরির ঘটনায় অনিক নামে অনার্স পড়ুয়া কলেজের এক ছাত্রকে আটক করা হয়েছে। চুরি করা খাতাগুলো নগরীর কাজী আজিম উদ্দিন কলেজ সংলগ্ন একটি দোকানে বিক্রি করতে গেলে দোকানি ২০২৪ সালের পরীক্ষার খাতা থাকায় তা তিনি কেনেনি। চুরির ঘটনায় তার সঙ্গে আরও কারা জড়িত তা তদন্ত করে বের করা হচ্ছে।

বাসন থানার পরিদর্শক (তদন্ত) রফিকুল ইসলাম বলেন, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের খাতা চুরির ঘটনায় একজন আসামী গ্রেফতার করে ১০বস্তা খাতা উদ্ধার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতকে রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। বিষয়েটি তদন্ত করা হচ্ছে।


প্রসঙ্গনিউজ২৪/জে.সি

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

কলেজ থেকে অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার ১০ বস্তা উত্তরপত্র চুরি

আপডেট সময় : ০৪:৪৬:৪৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০২৪

নিউজ ডেস্ক:


গাজীপুরে ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজ থেকে ২০২২ সালের অনার্স প্রথম বর্ষ পরীক্ষার ১০ বস্তা উত্তরপত্র চুরির ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের (জিএমপি) বাসন থানায় মামলা দায়ের করলে একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার মামলাটি দায়ের করেন ওই কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান পরীক্ষক সহযোগী অধ্যাপক ইফফাত আরা। এ ঘটনায় ওই কলেজের অনিক নামে স্নাতক শ্রেণির এক শিক্ষার্থীকে আটক করেছে পুলিশ।

মামলা সূত্রে জানা যায়, ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের পাশে ষ্টোর রুমে রাখা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনার্স ১বর্ষ পরীক্ষা-২০২২ রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষার ৩৯ বস্তা উত্তরপত্র ষ্টোর রুমে তালাবদ্ধ অবস্থায় ছিল। গত ২১ মার্চ বিকেলে ষ্টোর রুমে তালা সঠিকভাবে লাগানো ছিলো। ২২ মার্চ শুক্রবার দুপুরে ২টার দিকে কলেজের নিরাপত্তা প্রহরী শ্রী সুশিল ও নিরঞ্জন কলেজের অধ্যক্ষকে জানায়, ষ্টোর রুমের তালা ভেঙ্গে উত্তরপত্র চুরি হয়েছে। তাৎক্ষণিকভাবে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ১০ বস্তা পরীক্ষার উত্তরপত্র চুরি ঘটনা নিশ্চিত হন।
জানা গেছে, রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগের প্রধান পরীক্ষক সহযোগী অধ্যাপক ইফফাত আরার অধীনে কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের পাশে স্টোর রুমের মধ্যে রাখা হয় জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স ১ম বর্ষ (পরীক্ষা ২০২২) রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষার ১৯ বস্তা উত্তরপত্র। এছাড়া তার সহকর্মী একই বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক শাহাদাত হোসেনের অধীনে অনার্স ১ম বর্ষের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষার ২০ বস্তা উত্তরপত্রসহ মোট ৩৯ বস্তা উত্তরপত্র ওই স্টোর রুমের মধ্যে তালাবদ্ধ অবস্থায় ছিল। যার ফলাফল এখনো প্রকাশিত হয়নি।

মামলার বাদী ওই কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান পরীক্ষক সহযোগী অধ্যাপক ইফফাত আরা বলেন, ‘শুক্রবার জুমার পর খবর পাই ষ্টোর রুমের তালা ভেঙ্গে কে বা কারা আমাদের খাতাগুলো নিয়ে গেছে। পরে প্রিন্সিপাল স্যারসহ আমরা সবাই ঘটনাস্থলে যাই, পাশাপাশি পুলিশে খবর দেয়া হয়। পরে সেখানে দেখি ১০টা বস্তা খাতা চুরি গেছে। কোন বস্তাতে ২৫০টি উত্তরপত্র, কোন বস্তাতে ২৮০টি আবার কোন বস্তাতে ৩০০ থেকে ৩৫০টি উত্তরপত্র ছিল। পরে কেউ একজন একটি অটোরিকশা করে ১০বস্তা খাতা পাঠিয়ে দিয়েছে।’

ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ বি এম আব্দুল হান্নান জানান, ‘কলেজের বিজ্ঞান ভবনের নিচ তলায় একটি ষ্টোর আছে। শুক্রবার দুপুর দেড়টার দিকে খবর পাই সেখানের তালা ভেঙ্গে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের খাতা চুরি হয়েছে। তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশে খবর দেয়া হলে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শনে আসলে ঠিক ওই সময়ে কলেজেরই এক ছাত্র একটি অটোরিকশা দিয়ে ১০বস্তা খাতা নিয়ে কলেজ ক্যাম্পাসে আসে। পরে ওই ছাত্রকে পুলিশ আটক করে।’

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা বাসন থানার এস আই নাজমুল হক বলেন, খাতা চুরির ঘটনায় অনিক নামে অনার্স পড়ুয়া কলেজের এক ছাত্রকে আটক করা হয়েছে। চুরি করা খাতাগুলো নগরীর কাজী আজিম উদ্দিন কলেজ সংলগ্ন একটি দোকানে বিক্রি করতে গেলে দোকানি ২০২৪ সালের পরীক্ষার খাতা থাকায় তা তিনি কেনেনি। চুরির ঘটনায় তার সঙ্গে আরও কারা জড়িত তা তদন্ত করে বের করা হচ্ছে।

বাসন থানার পরিদর্শক (তদন্ত) রফিকুল ইসলাম বলেন, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের খাতা চুরির ঘটনায় একজন আসামী গ্রেফতার করে ১০বস্তা খাতা উদ্ধার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতকে রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। বিষয়েটি তদন্ত করা হচ্ছে।


প্রসঙ্গনিউজ২৪/জে.সি